কৌতুক; তিন মাতালের আলাপচারিতা

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ মানুষের জীবনে হাসির প্রয়োজনীয়তা রয়েছে । কর্মব্যস্ততার মধ্যে আমরা খুব কম সময় পাই নির্মল হাসির জন্য । কাজের ফাঁকে কিছু কৌতুক যদি আমাদের হাসির খোরাকের যোগান দেয় তাহলে মন্দ কি !

তিন মাতালের গল্পঃ 

শীতের রাত । একটি পুকুরের পাড়ে বসে তিন জন মাতাল সুরা পান করছে । তিন জনেই বেশ ভাল বন্ধু । যাইহোক কিছু সময় পরে সুরার প্রভাবে তাঁরা সকলেই মাতাল হয়ে গেল । আর আমরা সকলেই জানি মা্তাল হলে মানুষের মধ্যে দার্শনিক বোধের উদয় হয় । তিন মাতালের মধ্যেও সেই একই বোধের উদয় হল । প্রথমে প্রথম মাতালের পুকুরের দিকে তাকিয়ে মনে হল ধোঁয়া উঠছে । সে চিৎকার করে বাকি দুই জনের মনোযোগ সেদিকে নিয়ে বলল, “দ্যাখ, দ্যাখ পুকুরে আগুন ধরে গেছে । ধোঁয়া উঠছে । এবার মাছগুলোর যে কি হবে ?”

দ্বিতীয় মাতাল পুকুরের দিকে তাকিয়ে কিছুক্ষন চিন্তা করল এবং উত্তর দিল, “চিন্তা করিস না ভাই । মাছগুলো গাছে উঠবে ।”

এবার তৃতীয় মাতালের পালা । সে বাকি দুই জন মাতালের কথা এতসময় ধরে শুনছিল । এবার আর না থাকতে হাসতে হাসতে গড়িয়ে পড়ল । বাকি দুই জন অবাক হয়ে তাঁকে জিজ্ঞাসা করল, ভাই, কি হয়েছে, এত হাসার কি হয়েছে ? তখন তৃতীয় মাতাল কোন রকমে নিজেকে সামলে নিয়ে উত্তর দিল, “আরে বোকা, মাছগুলো কি গরু, যে গাছে উঠবে” ।

দুই মাতালের কথাঃ 

দুই মাতাল মদ খাবার পর মাতাল হল । এবার একজনের মনে হল আকাশের সূর্যের কথা । আর মনে হতেই সরল মনে অপর জনকে জিজ্ঞাসা করল, “আচ্ছা ভাই, বলতে পারিস, রাতে সূর্য দেখা যায় না কেন?”

দ্বিতীয় জন উত্তর দিতে দেরী করল না । সে উত্তর দিল,  “দেখবি কীভাবে! রাতে যে রকম অন্ধকার থাকে, তাতে কি সূর্য দেখা যায় !”

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...