সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

আপনি কি ধূমপান ছাড়তে চান?তবে যেনে নিন ১০০% কার্যকরী এই উপায়

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ- ধূমপান, মদ্যপান এবং যে কোন ড্রাগ সেবনই স্বাস্থের পক্ষে ক্ষতিকর তা আমরা সকলেই জানি। তবুও কোন নেশা থেকেই বেশিক্ষণের জন্য বিরত থাকতে পারেনা সাধারণ মানুষ। ফলে আসতে আসতে নেশা শেষ করে দেয় সেই ব্যক্তিকে এবং তার সাথে সাথে তাদের পরিবারকে।তাই দেরী না করে যেকোনো উপায় সবরকম নেশা থেকে মুক্ত করা উচিৎ নিজেদেরকে।

সব রকম নেশার মধ্যে সবচেয়ে ক্ষতিকর হল সিগারেটের নেশা।ধীরে ধীরে ভেতর থেকে শেষ করে দেয় এই নেশা।কখনও কখনও ক্যান্সার পর্যন্ত হতে পারে এর কারণে।অনেকে হয়তো বুঝতে পেড়েও ছাড়তে পারে না।তবে কিছু উপায় অবলম্বন করলে আস্তে আস্তে এই মরণ কামড় থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।

বর্তমানে কিছু গবেষকদের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফলে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য উঠে এসেছে যা মানুষের পক্ষে উপকারী। তাঁদের মতে, তীব্র মানসিক ইচ্ছে এবং জীবনযাত্রার কিছু পরিবর্তন ঘটালেই একজনের পক্ষে এই নেশার হাত থেকে মুক্তির পথ কিছুটা সুগম হবে।এছাড়াও সমীক্ষায় জানা গেছে হঠাৎ করে যারা ধূমপান বন্ধ করার কথা ভাবেন তাদের মধ্যে মাত্র ৫-৭% মানুষ এভাবে ছাড়তে পেড়েছেন। কোন সাহায্য বা থেরাপি ছাড়া একেবারে ছাড়া সম্ভব নয়। এর মধ্যে ব্যাবহারিক থেরাপির মাধ্যমে কাউনসিলিং এর মাধ্যম হতে পারে, হতে পারে নিকোটিন রিপ্লেসমেণ্ট থেরাপি, জার মাধ্যমে সিগারেটের বদলে গাম, লজেন্স ইত্যাদি ব্যাবহার করা যেতে পারে, এছাড়া বাজারে বিভিন্ন রকম ওষুধ পাওয়া যায় যার নিয়মিত সেবনে ধূমপানে আসে অরুচি।

এত গেলো পদ্ধতি কিন্তু অনেকেই শুরু করে টিকে থাকতে পারেন না তারা কীভাবে টিকে থাকবেন তাড়ও কিছু পদ্ধতি আছে-

নিজের দুর্বলতা অর্থাৎ ট্রিগার সম্পর্কে জানতে হবে, কি আপনাকে সিগারেটের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে সেটা থেকে দূরে থাকুন। নিজের আকাঙ্ক্ষার কাছে পরাজিত না হয়ে দুর্বলতা কে এড়িয়ে চলতে হবে। প্রথমে একটু কষ্ট হলেও আস্তে আস্তে আপনি মারণ নেশা থেকে বেড়িয়ে এসে সুন্দর জীবন যাপন করতে পাড়বেন।

মন্তব্য
Loading...