নিজের বান্ধবীকে ব্ল্যাকমেইল করতে গিয়ে বিতর্কে জড়ালেন পাকিস্তানের এই ক্রিকেটার

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ দুবাইয়ে বসবাসকারী বান্ধবীর নগ্ন ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ করে দেওয়ার নাম করে ব্ল্যাকমেইলিং কেসে নাম জড়িয়ে গেল পাকিস্তানের ক্রিকেটার শাদাব খানের নাম । ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসার পর পাকিস্তানের ক্রিকেটে আবার কালিমা লেগে গেল ।

পাকিস্তান ক্রিকেটার শাদাব খানের নাম ব্ল্যাকমেইলিং কেসে জড়িয়েছে দুবাই নিবাসী তার বান্ধবী আশরিনা সাফিয়া  নামে এক তরুণীর সাথে । সম্প্রতি দুবাইয়ের উক্ত তরুণী পাক ক্রিকেটার শাদাব খানের নামে অভিযোগ এনেছে, পাকিস্তানের ক্রিকেটার শাদাব খান নাকি সোশ্যাল মিডিয়ায় তার নগ্ন এবং আপত্তিকর ছবি প্রকাশ করে দেবার হুমকি দিয়েছেন । আদালতে অভিযোগ জানানোর সময় আশরিনা মোবাইলে তাদের মেসেজের কিছু স্ক্রিন শট পেশ করেছেন ।

জানা গেছে, গত মার্চ মাসে একটি টুর্নামেন্ট খেলতে দুবাইতে গিয়েছিলেন পাকিস্তানের ক্রিকেটার শাদাব খান । সেই সময় একজন বান্ধবীর মাধ্যমে তার সাথে পরিচয় হয় সাফিয়ার । পরবর্তীকালে তাদের পারস্পারিক সম্পর্ক আরও নিবিড় হয় এবং ক্রমশ সেটি প্রেমের দিকে যায়, এমনটাই দাবী সাফিয়ার । এমনকি বেশকিছু টুর্নামেন্টে শাদাব খানের সঙ্গী হয়েছিলেন তিনি ।

শাদাব খানের সেই হুমকি মেসেজ, যা তিনি সাফিয়াকে পাঠিয়েছিলেন
শাদাব খানের সেই হুমকি মেসেজ, যা তিনি সাফিয়াকে পাঠিয়েছিলেন

কিন্তু কেন পাকিস্তানের ক্রিকেটার শাদাব খান তরুণীর সাথে এমন ব্যবহার করতে গেলেন ! জানা গেছে, সম্প্রতি একজন পাকিস্তান সাংবাদিক পাকিস্তানের টি-২০ দলের নিয়মিত সদস্য শাদাব খানের সাথে দুবাইয়ের আশরিনা সাফিয়ার সম্পর্কের কথা প্রকাশ করেন । এছাড়া, সাফিয়া নিজের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট থেকে পোস্ট করেছিলেন যে,  ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপ চলাকালীন ও একাধিক টুর্নামেন্টে তিনি শাদাবের সঙ্গে গিয়েছেন। ঘটনা জানা জানি হতেই শাদাব খান সাফিয়াকে হুমকি দিতে শুরু করে তাদের সম্পর্কের কথা বাইরে প্রকাশ না করার জন্য । এমনকি তিনি জানিয়েছিলেন, সাদিয়া যেন একজন প্রেমিকা নয়, বরং একজন ফ্যান হিসাবেই নিজের পরিচয় দেন । আর যদি তিনি এটা না মেনে নেন, তাহলে   তাহলে সাফিয়ার নগ্ন ও ব্যক্তিগত ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ফাঁস করে দেবেন ।

ঘটনা যে দিকে গড়াচ্ছে, তাতে শাদাব খান খুব সহজেই পার পেয়ে যাবেন বলে মনে হয় না । কারন দুবাই থেকে সাফিয়া আদালতে যে এভিডেন্স পেশ করেছে, তাতে শাদাব খান খুব সহজেই জড়িয়ে যেতে পারেন । আশরিনা সাফিয়া আরও জানিয়েছেন, এই নিয়ে শাদাবের সঙ্গে তাঁর কথা কাটাকাটি হয় ।  তিনি  আরও বলেন,  অন্য মেয়েদের সতর্ক করে দেওয়ার জন্য এই কথা সবাইকে জানাতে যান তিনি। সাফিয়া নিজের অ্যাকাউন্টে লেখেন, “বিষয়টি খুবই ব্যক্তিগত। কিন্তু সত্যিটা সবার সামনে আনতেই হত। এভাবে একজন মহিলাকে ঠকানোর জন্য শাদাবকে শাস্তি পেতেই হবে। আমি আইনি পথে যাব।”

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...