সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

লকডাউনের কারনে আগামী তিনমাস বিনামুল্যে রান্নার গ্যাস দেবার কথা ঘোষণা করলে কেন্দ্রীয় সরকার

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ দিন দিন করোনার বিরুদ্ধে লড়াই ক্রমশ কঠিনতর হয়ে পড়ছে । ইতিমধ্যে দেশজুড়ে চলছে ২১ দিনের লকডাউন । সমাজের প্রায় সকল স্তরের মানুষ স্মাজিক দূরত্ব বজায় রাখার জন্য গৃহবন্দী । ২১ দিন বিত্তশালীদের পক্ষে ঘরে বসে কাটানো খুব একটা সমস্যা না হলেও থমকে যাবে গরীবদের জীবন । এবার লকডাউনের অসুবিধার কথা মাথায় রেখে আগামী তিন মাস বিপিএল তালিকায় থাকা সাধারন গরীব মানুষদের বিনা মুল্যে রান্নার গ্যাস দেবার কথা ঘোষণা করল কেন্দ্র ।

আজ কেন্দ্রীয় সরকার ঘোষণা করেছে আগামী তিন মাস গোটা দেশে মোট আট কোটি ৩০ লক্ষ পরিবারকে আগামী তিন মাস বিনামুল্যে রান্নার গ্যাস দেবে । একটি পরিবারে যদি চার জন সদস্য গড় হিসাবে ধরা হয় তাহলে এই ঘোষণার ফলে সরাসরি উপকৃত হবেন প্রায় ৩৫ কোটি গরীব মানুষ । কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে অর্থ মন্ত্রী নির্মলা সীতারমন জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী উজ্জ্বলা যোজনায় যে প্রান্তিক পরিবারগুলি গ্যাস সিলিন্ডার নিয়েছে, আগামী তিনমাস তাদের বিনামূল্যে গ্যাস দেবে কেন্দ্রীয় সরকার।

অর্থমন্ত্রী বৃহস্পতিবার সাংবাদিক সম্মেলন করে বিনা মুল্যে রান্নার গ্যাস দেবার কথা ঘোষণা করার সময় বলেন, “এই সময়ে টাটকা রান্না করা খাবার খাওয়াটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তাই আগামী তিনমাস উজ্জ্বলা যোজনায় গ্যাস নেওয়া ৮.৩ কোটি পরিবারকে বিনামূল্যে গ্যাস সিলিন্ডার দেবে কেন্দ্র।” পাশাপাশি আজ করোনা মোকাবিলা করতে কেন্দ্রীয় সরকার মোট একলক্ষ ৭০ হাজার কোটি টাকার প্যাকেজ ঘোষণা করেছে ।  বৃদ্ধ থেকে বিধবা, অসংগঠিত-সংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিক কর্মচারী থেকে স্বনির্ভর গোষ্ঠী—সমাজের প্রায় সব অংশের মানুষের জন্য সরাসরি আর্থিক সাহায্যের কথাও আজ ঘোষণা করলেন কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রী ।

আজ একগুচ্ছ ঘোষণার মধ্যে উল্লেখযোগ্য ছিল পরিবার পিছু পাঁচ কেজি করে অতিরিক্ত চাল, এক কেজি অতিরিক্ত গম দেওয়ার ঘোষণা । এছাড়াও কেন্দ্রীয় সরকার ঘোষণা করেছে জনধন যোজনায় যে মহিলারা অ্যাকাউন্ট খুলেছিলেন তাঁদের প্রত্যেকের অ্যাকাউন্টে দু’কিস্তিতে এককালীন একহাজার টাকা করে দেওয়া হবে। এবিষয়ে সাংবাদিক বৈঠকে কেন্দ্রীয় অর্থপ্রতিমন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর বলেন, “অন্ন দেওয়ার পাশাপশি তা রান্নার জন্য গ্যাসও দেওয়া হচ্ছে। শুধু তাই নয়, ন্যূনতম খরচের জন্য বিভিন্ন খাতে টাকা দেওয়া হচ্ছে। করোনার জন্য লকডাউনে সাধারণ গরিব মানুষের ন্যূনতম চাহিদাগুলি যাতে মেটে, তার জন্য বদ্ধপরিকর নরেন্দ্র মোদীর সরকার।”

মন্তব্য
Loading...