ঋণ না মিটিয়ে বিদেশে পালিয়ে গেছে এমন তালিকার কথা ঘোষণা করল কেন্দ্র

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ সারা দেশে ব্যাঙ্ক জালিয়াতি এবং আর্থিক প্রতারনায় আলোচনার কেন্দ্রে ছিল কিং ফিসারের মালিক বিজয় মালিয়া এবং তার পর নীরব মোদী । কিন্তু বিজয় মালিয়া বা নীরব মোদী নন, বরং বলা যায় দিনে দিনে ব্যাঙ্ক জালিয়াতি এবং আর্থিক প্রতারনা করে দেশ ছাড়ার তালিকা দীর্ঘতর হচ্ছে । অবশেষে এ বিষয়ে মুখ খুলল কেন্দ্র ।

সঙ্গল বার সংসদ অধিবেশন চলা কালীন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী অনুরাগ সিং ঠাকুর ‘‌পলাতক আর্থিক অপরাধী’ সংক্রান্ত একটি লিখিত প্রশ্নের জবাবে জানালেন,  ব্যাঙ্ক থেকে মোটা অঙ্কের ঋণ নিয়ে সেই ঋণ মেটাতে না পেরে দেশ ছেড়ে পালিয়েছেন অনেকে ।  তাঁদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছে সিবিআই, ইডি।এই তালিকায় রয়েছে কিংফিসার এয়ারলাইন্সের কর্তা বিজয় মালিয়া,  হীরা ব্যবসায়ী নীরব মোদি,  মেহুল চোকসির মতো শিল্পপতিরা ।

উল্লেখ্য, কিং ফিসারের মালিক বিজয় মালিয়ার বকেয়া ঋণের পরিমান প্রায় ন’‌হাজার কোটি টাকা । অপর দিকে,  যেখানে পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কে মোট ১৩ হাজার কোটি টাকার আর্থিক প্রতারণার অভিযোগ আছে নীরব-চোকসিদের বিরুদ্ধে। বিজয় মালিয়া-নীরব মোদি-মেহুল চোকসিরা এখন রয়েছেন লন্ডনে ।  শুধু নীরব মোদি বা বিজয় মালিয়া নন, মোটা অঙ্কের আর্থিক প্রতারণায় অভিযুক্ত মোট ৫১ জন ব্যক্তি দেশ ছেড়ে পালিয়েছে। তাঁদের দ্বারা প্রতারিত অর্থের পরিমান  প্রায় ১৮ হাজার কোটি টাকা ।

এই বিপুল পরিমাণে টাকা কিভাবে জালিয়াতি করে দেশ ছেড়ে বিদেশে পাড়ি দিয়ে সেখানে ভাল তবিয়তে থাকছে অপরাধীরা এবং আর্থিক প্রতারণার অভিযোগে অভিযুক্ত শিল্পপতিদের দেশে ফিরিয়ে আনার ক্ষেত্রে সেরকম কোনও সদর্থক পদক্ষেপ কেন  এখনও গ্রহণ করেনি কেন্দ্রের মোদি সরকার, এই সকল প্রশ্ন বিরোধী মহল থেকে বারংবার উঠে আসছে ।  ‌

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...