সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

শ্রীলঙ্কায় এবার নিষিদ্ধ হল শতাব্দী প্রাচীন মুসলিম প্রথা

0

সারা বিশ্ব জুড়ে যে যুদ্ধ ও আতঙ্কবাদ তার বিষাক্ত ফণা তুলে বিষ ঢেলে চলেছে তার মূলে রয়েছে ধর্ম।যাকে হাতিয়ার করে সাধারণ মানুষ থেকে নেতামন্ত্রীরা এবং আতঙ্কবাদীরা ঘটিয়ে চলেছে একের পর এক সাংঘাতিক কাণ্ড।যার সাম্প্রতিকতম শিকার শ্রীলঙ্কা।

গত ২১ শে এপ্রিল ইস্টার সানডের দিন সিরিজ বোমা হামলায় কমপক্ষে ২৫৩ জন নিহত ও ৫ শতাধিক ব্যাক্তি আহত হওয়ার পর শ্রীলঙ্কা সরকার জনসমক্ষে বোরখা বা নিকাবের মতো মুখ ঢেকে রাখার পোশাক নিষিদ্ধ করেছে। প্রেসিডেন্ট সিরিসেনার মতে, তিনি একটি জরুরি আইন আরোপ করেছেন যার ক্ষমতা বলে সোমবার ( আজ) থেকে তা কার্যকরী হবে। চেহারার ওপর যেকোনও কাপড় যে পরিচয় নিশচিন্তিতে বাঁধা সৃষ্টি করে তা জাতীয় নিরাপত্তার স্বার্থে নিষিদ্ধ হবে বলে জানায় সরকার।

ইস্টার সানডের দিন চার্চ ও হোটেলে ভয়াবহ সিরিজ হামলার পর গত ৮ দিন ধরে শ্রীলঙ্কা সরবচ্চো সতর্কতায় রয়েছে। কয়েকডজন স্বন্দেহভাজনকে আটক করা হয়েছে, জানা গেছে যে আরও কয়েক জন জঙ্গি পলাতক।

উল্লেখ করা যায় যে, শ্রীলঙ্কায় প্রায় ২ কোটি ১০ লাখ জনসংখ্যার ১০ ভাগ মুসলিম, তবে দেশের অল্প সংখ্যকই মুসলিম নারী নিকাব বা বোরখা পরিধান করে।

মন্তব্য
Loading...