সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

রঙ্গিলা বেবীতে সোস্যাল মিডিয়ায় ঝড় তুলেছেন জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা মাহি (ভিডিও সহ)

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্ক-গত ১৯ জুলাই মুক্তি পাওয়ার কথা রঙ্গিলা বেবী খ্যাত চিত্রনায়িকা মাহি অভিনীত অবতার সিনেমা। দেশে বন্যা কথা বিবেচনা করে সিনেমাটিকে দুই মাস পিছিয়ে মুক্তির তারিখ ঠিক করা হয় ১৩ সেপ্টেম্বর। পরিচালকের তথ্য মোতাবেক জানা যায় সিনেমাটি ৬০ থেকে ৭০টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে। সিনেমা মুক্তির আগেই ইউটিউবে ঝড় তুলেছে রঙ্গিলা বেবি। গত ১১ আগস্ট বঙ্গবিডির ইউটিউব চ্যানেলে গানটি মুক্তি দেওয়া হয়। গানটি মুক্তি পাওয়ার পর পরই নেটিজেন দুনিয়ায় ঝড় উঠে। আইটেম গান চিরকালই খ্যাত তার সাথে মাহি।

&

আইটেম গানটি নিয়ে মাহি বলেন, “আমি সিনেমার নির্দিষ্ট ফর্মুলায় বিশ্বাস করি না। একজন দর্শক হিসেবে যা যা পর্দায় দেখতে চাই, আমি নিজে তাই-ই করি। এ জন্য আইটেম গান করতে আমার খারাপ লাগে না। কারণ দর্শক নাচের গান দেখতে খুবই পছন্দ করে। বলিউডের দিকে খেয়াল করলে দেখতে পাবেন, সেখানেও নাচের গানগুলো নিয়েই আলোচনা হয়। এ জন্য আমি ক্যারিয়ারের একেবারে শুরুর দিকে ম্যাজিক মামণি আইটেম গানটি করেছিলাম। তখন সিনেমার নায়িকারা আইটেম গান করতে পছন্দ করতেন না। আমার সেই গানটি ব্যাপক জনপ্রিয় হওয়ার পর অনেক নায়িকাই এখন আইটেম গান করছেন। তবে ‘আইটেম’ শব্দটিতে আমার আপত্তি আছে। বলিউডেও এ নিয়ে কথা হচ্ছে। আমি নাচতে ভালোবাসি, তাই নাচের গান করতে চাই।”

গানের কোন দিক গুলো বিশেষ করে খেয়াল রাখেন এ প্রসঙ্গে মাহি বলেন, ‘গানে আমাকে কীভাবে উপস্থাপন করা হবে, সেটা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। এরপর গানের কথা, আমার পোশাক ও কোরিওগ্রাফির দিকে নজর দিই। সবকিছু শৈল্পিক হলেই কাজটি করি। ম্যাজিক মামণি গানটি কারও কাছে অশ্লীল লাগেনি। এবার করেছি রঙ্গিলা বেবি। গানটির কথা লিখেছেন গুণী গীতিকার শহীদুল্লাহ ফরায়েজি। এত মার্জিত কথার মধ্য দিয়ে তিনি বিনোদনের স্বাদ দিয়েছেন, যা অবিশ্বাস্য। এ ছাড়া ঐশী গানটি চমৎকার গেয়েছেন। আমার পোশাক আর উপস্থাপনা নিয়েও দর্শক সন্তুষ্ট। তাই গানটি দ্রুতই মানুষের কাছে পৌঁছে যাচ্ছে।’

মাহির কথা মতে তিনি অবতার সিনেমা প্রচারের অন্যান্য কর্মকান্ডের সাথে যুক্ত হবেন। অবতার সিনেমায় বর্তমান সমাজের কথা বলা হয়েছে। এখানে সমাজের অরাজকতা ও এর কুফল দেখানো হয়েছে। এছবিতে মাহির বিপরীতে অভিনয় করেছে আমির খান।

রঙ্গিলা বেবীর গানটি এ পর্যন্ত বিশ লক্ষ বারের অধিক দেখা হয়েছে। যা যে কোন গানের ক্ষেত্রে অসামান্য সফলতা। গানটির কথা বলতে গেলে একজন দর্শক এম.ডি. নিলয় পারভেজ এর অনুভুতি থেকেই বলতে হয়, “গানটা জাস্ট অসাম। শিল্পীর প্রশংসা করতেই হয় , ঐশীর গলার ভয়েস এতটা নিখুত ভাবে গানটা ফুটে তুলেছে যা অসাধারন। মাহীর লুক বরাবরের মত অনেক কিউট, এক্সপ্রেশন দারুন ছিলো বাট বডি Language অনেক মন্থর ছিলো, ফিটনেস প্রথমদিকে একটু অস্বাভাবিক লাগলেও মাঝখানে এবং শেষে দারুন লেগেছে। ওভারঅল সবকিছু মিলিয়ে খুব ভালো লেগেছে। “ অস্বাভিক ভাবে দর্শকরা গানটি দেখে তাদের অনুভুতিও ব্যক্ত করছেন। এ পর্যন্ত ১৫ শতর অধিক দর্শক তার মতামত প্রদান করেছেন।

মন্তব্য
Loading...