লক ডাউনের প্রথম দিনেই রাজ্যে গ্রেপ্তার করা হল ২৫৫ জনকে, ৩০ টি রাজ্যেই চালু লকডাউন

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ সারা দেশব্যাপী করোনা মোকাবিলায় পালিত হয়েছে ‘জনতা কারফিউ’ । ‘জনতা কারফিউ’ চলাকালীনই ঘোষিত হয়ে গেছে দেশ ব্যাপী লক ডাউনের কথা । কিন্তু এখনও অনেকেই গুরুত্ব দিচ্ছে না এই ব্যবস্থাকে । কলকাতায় প্রথম দিনেই তার পরিচয় পাওয়া গেল । বিকালের পর লকডাউন চালু হবার পর রাত অবধি লকডাউন অমান্যকারী হিসাবে গ্রেপ্তার করা হল ২৫৫ জনকে ।

করোনার প্রভাব আগামী দিনে কতখানি প্রভাব বিস্তার করতে চলেছে অনেকেই এই বিষয়ে উদাসিন রয়েছে এখনও । গতকাল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী স্বয়ং নিজের টুইটারে জানিয়েছেন এই উদাসীনতার কথা । পাশাপাশি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের উদ্দেশ্যে জানিয়েছিলেন যারা কেন্দ্রীয় সরকারএবং রাজ্য সরকারের এই লকডাউন ব্যবস্থা মেনে চলবে না, তাঁদের আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার কথা। কিন্তু কে শোনে কার কথা ! পাঁচটার পর লকডাউন চালু হলেও বন্ধ হয়নি রাস্তার মোড়ে কিম্বা গলিতে আড্ডা ও জটলা । প্রমান পাওয়া গেল,  বিকেল পাঁচটার পর থেকে রাত পর্যন্ত ২৫৫জনকে গ্রেফতার করেছে  কলকাতা পুলিশ।

এদিকে প্রধান মন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ছাড়াও রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যবাসীকে অনুরোধ করেছিলেন, বিনা কারনে ঘরের বাইরে না বের হবার জন্য । এমন কি, কলকাতার পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা আবেদন জানিয়ে বলেছেন, “ঘরে থাকুন। প্রশাসনের সঙ্গে সহযোগিতা করুন।”অন্য দিকে  হুঁশিয়ারির সুরে নগরপাল জানিয়ে দিয়েছেন, কলকাতার আনাচেকানাচে পুলিশি অভিযান চলবে। আগামীকালও চলবে পুলিশি অভিযান ।

এদিকে  গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে ৭৫জনের শরীরে করোনা ভাইরাসের পজিটিভ রিপোর্ট  মিলেছে। এরপরই কেন্দ্রীয় সরকার সিদ্ধান্ত নেয় ৩০টি রাজ্যে পূর্ণ লকডাউনের। মোট ৫৪৮টি জেলা পড়ছে লকডাউনের আওতায়। এদিকে পরিস্থিতি যখন ক্রমশ জটিল হচ্ছে তখনও জনগণের একাংশের মধ্যে উদ্বেগের লেশমাত্র নেই। ফলে পুলিশের কাছে জামাই আদর খাচ্ছে ২৫৫ জন ।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More