এন আর সি চালু হবে পশ্চিমবঙ্গে, সাংবাদিকদেরকে স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন স্মৃতি ইরানি

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গে অবশ্যই চালু হবে এন আর সি নথিভুক্তিকরণ, সম্প্রতি দিদির রাজ্যের রাজধানী কলকাতায় এসে এমনটাই ঘোষণা করলেন ভারতীয় জনতা পার্টি-র অন্যতম মহিলা সদস্য স্মৃতি ইরানি।

ভারতবর্ষের দায়িত্বে থাকা মোদী সরকারের আসনে বসার ১০০ দিন পূরণ হওয়ার উপলক্ষে এই দিন কলকাতায় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হতে হয় স্মৃতি’কে। বিগত এই ক’দিনে মোদী সরকারের সাফল্য হিসাবে, কাশ্মীরে ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপ থেকে নাগরিক পঞ্জি – সবকটির উল্লেখ করেন তিনি। পাশাপাশি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়’কেও কথার আক্রমণ করতে ছাড়লেন না তিনি। স্মৃতি উল্লেখ করেন, এক সময় ভুয়ো ভোটার আটকাতে সচিত্র ভোটার কার্ডের পক্ষে সওয়াল করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী। এটাকে মমতার দ্বিচারিতা বলে উল্লেখ করেছেন তিনি। রাজ্যের কাটমানি ইস্যু’র উল্লেখ করতেও ভোলেননি স্মৃতি।

তবে সচিত্র ভোটার কার্ডের আন্দোলনের সঙ্গে নাগরিক পঞ্জির সম্পর্কের বিষয়টি পরিষ্কার না হওয়ায় সাংবাদিকেরা প্রশ্ন করলে, তিনি তা এড়িয়ে যান। পরিবর্তে তিনি স্পষ্ট জানান, “অনুপ্রবেশকারীদের আটকাতে পশ্চিমবঙ্গ-সহ গোটা দেশেই নাগরিক পঞ্জি হবে। এটা বিজেপির ঘোষিত সিদ্ধান্ত।”

অপরদিকে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় ইতিমধ্যেই এন আর সি-র রাস্তায় আন্দোলনে নামবার প্রস্তুতি নিয়ে নিয়েছেন। অসমে এন আর সি তালিকা প্রকাশের ফলে যে পরিমাণ অসুবিধার সৃষ্টি হয়েছে, তার প্রতিবাদে বৃহস্পতিবার, সিথি থেকে শ্যামবাজার পর্যন্ত মিছিল করবে তৃণমূল কংগ্রেস দল। জানা যাচ্ছে যে, স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রীও সেই মিছিলে যোগদান করবেন। উল্লেখ্য, ইতিমধ্যেই রাজ্যের ব্লকে ব্লকে মিছিল এবং সভা করেছে তৃণমূল।

এই দিন ভারতীয় জনতা পার্টি-র সদস্যা স্মৃতি ইরানি’র অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে রাজ্যের মন্ত্রী তথা তৃণমূল নেতা ফিরহাদ হাকিম পাল্টা কটাক্ষ করলেন, “সাস ভি কভি বহু থি। স্মৃতি আজ যা বলছেন, কাল নিজেই বলবেন তা ঠিক নয়। এ সব কথাকে বেশি গুরুত্ব না দেওয়াই ভাল।”

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...