বিকিনি পরে সমুদ্র সৈকতে হাটার সময় জোর করে পোশাক পরানোর চেষ্টা পুরুষ পুলিশ কর্মীদের, ভাইরাল ভিডিও

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ বিকিনি পরে খোলা মেলা পরিবেশে নিশ্চিন্ত হাটছিলেন একজন ব্রিটিশ তরুণী । এমন সময় হঠাৎ করে সেই তরুণীকে কয়েকজন  পুরুষ পুলিশ কর্মী এসে জোর করে পোশাক পরাতে রীতিমত ধস্তাধস্তি করে । সেই দৃশ্যের ভিডিও প্রকাশ্যে আসার পর ভাইরাল হতে সময় নেয়নি । ঘটনাটি ঘটেছে মালদ্বীপের মাফুসি এলাকার একটি দ্বীপে । এই ঘটনায় পুলিশ ক্ষমা চেয়েছে ।

সম্প্রতি একটি ভিডিওতে দেখা গেছে বিকিনি পরে মালদ্বীপের মাফুসির একটি দ্বীপে নিজের মত করে ঘুরে বেড়াচ্ছিলেন একজন ব্রিটিশ তরুণী । ঠিক এমন সময় কয়েকজন পুরুষ পুলিশ কর্মী এসে জোর করে সেই তরুণীকে তোয়ালে দিয়ে ঢাকার চেষ্টা করে । সেই সময় পুলিশ কর্মীদের সাথে সেই ব্রিটিশ পর্যটকের সাথে রীতিমত ধস্তা ধস্তি করতে দেখা যায় । ঘটনার ভিডিও প্রকাশ্যে আসার পর সমালোচিত হচ্ছেন মালদ্বীপ পুলিশ ।

ব্রিটিশ পর্যটক সেই তরুণীকে বিকিনি পরে দ্বীপে ঘোরার অপরাধে পুলিশ গ্রেপ্তার করে । কিন্তু সেই তরুণীর সাথে পুরুষ পুলিশ কর্মীদের জোর জবদস্তি এবং গ্রেপ্তারের ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যাওয়ার পর মালদ্বীপ পুলিশ এক বিবৃতিতে ক্ষমা চেয়েছে। প্রকাশ হওয়া ভিডিওতে দেখা গেছে  ব্রিটিশ ওই পর্যটক মালদ্বীপ পুলিশের তিন সদস্যের সঙ্গে রীতিমতো লড়াই করছেন। এ সময় পুলিশের এক সদস্য ওই তরুণীর শরীর সৈকত তোয়ালে দিয়ে ঢেকে দেয়ার চেষ্টা করেন। ভিডিওতে পুলিশ সদস্যদের উদ্দেশে ব্রিটিশ উচ্চারণে ওই তরুণীকে চিৎকার করে বলতে শোনা যায়, আপনারা আমাকে যৌন নিপীড়ন করছেন।

এই ঘটনায় মালদ্বীপ পুলিশ সার্ভিসের কমিশনার মোহাম্মদ হামিদ ওই নারীকে গ্রেফতারের ঘটনার পর তীব্র সমালোচনার মুখে ক্ষমা চেয়ে বিবৃতি দিয়েছেন।

এমনিতেই মালদ্বীপে সারা বছর পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ থেকে নানা ধরনের পর্যটক আসেন । সেখানে বিকিনি পরা অবৈধ নয়। তবে হলিডে রিসোর্টের বাইরে অন্য সব ক্ষেত্রে এটি কঠোরভাবে নিষিদ্ধ।ব্রিটিশ তরুণীটি রিসোর্টের বাইরে রাস্তায় বিকিনি পরে হাঁটায় পুলিশ কর্মীরা চেয়েছিল তাঁকে পোশাক পরাতে । কিন্তু সেখানে প্রকৃত পক্ষে দরকার ছিল মহিলা পুলিশ কর্মীর । দেখুন সেই ভাইরাল হওয়া ভিডিও –

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...