‘ইনশাল্লাহ’ এর পরিবর্তে বনশালী’র আরেকটি প্রজেক্টে দেখা যাবে আলিয়া’কে

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্ক: আগামী ২০২০ সালের ঈদে বড় পর্দায় মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল সঞ্জয় লীলা বনশালী’র পরবর্তী ছবি ‘ইনশাল্লাহ’। দীর্ঘ সময়ের ব্যবধানের পর এই ছবিতে একসঙ্গে কাজ করতে চলেছিলেন বলিউডের ‘ভাইজান’ সলমন খান এবং প্রখ্যাত পরিচালক সঞ্জয় লীলা বনশালী। ছবিতে সলমন এর বিপরীতে নায়িকা’র চরিত্রের জন্য বেঁছে নেওয়া হয়েছিলো জনপ্রিয় বলিউড অভিনেত্রী আলিয়া ভাট’কে। এমনকি ‘ইনশাল্লাহ’ ছবিতে কাজ করার জন্য অভিনেতা আমির খান এর ছবিতে কাজ করার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছেন আলিয়া।

কিন্তু শেষ পর্যন্ত বন্ধ হয়ে যায় ‘ইনশাল্লাহ’ ছবির শ্যুটিং। সলমন এবং সঞ্জয় এর মতবিরোধের কারণেই ২০২০ সালের ঈদে বড় পর্দায় মুক্তি পাচ্ছেনা ‘ইনশাল্লাহ’। আবার কবে ছবির শ্যুটিং শুরু হবে কিংবা আদেও শুরু হবে কিনা, সে বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছুই বলা যাচ্ছেনা এখনও। সলমন এবং সঞ্জয় দু’জনের কেউই ছবির শ্যুটিং ভেস্তে যাওয়ার স্পষ্ট কোনও কারণ বলছেন না।

কিন্তু ‘ইনশাল্লাহ’ ছবির কাজ বন্ধ হয়ে যাওয়াই খুবই মন খারাপ হয়ে গিয়েছিল বলিউড কুইন আলিয়া ভাট-এর। একেই এটা ছিল সঞ্জয় লীলা বনশালী’র ছবিতে তাঁর প্রথম অভিনয়, পাশাপাশি এই ছবির জন্য আমির খান-এর ছবিতে কাজ করার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছেন তিনি। তবে বর্তমানে আর মন খারাপ নেই আলিয়া’র। ‘ইনশাল্লাহ’ ছবির কাজ না হলেও, বনশালী’র অন্য ছবিতে কাজ করতে চলেছেন তরুণ এই অভিনেত্রী, এমনটাই জানা যাচ্ছে সংবাদ সূত্র থেকে।

‘ইনশাল্লাহ’ ছবির শ্যুটিং বন্ধ হয়ে গেলেও বেশ ক’দিন ধরেই বনশালী’র বাড়িতে যাতায়াত ছিল অভিনেত্রী আলিয়া ভাট-এর, সম্প্রতি সংবাদ মাধ্যম থেকে এর কারণ জানা গেলো। প্রখ্যাত পরিচালক সঞ্জয় লীলা বনশালী অন্য আরেকটি ছবি’র জন্য বেঁছে নিয়েছেন আলিয়া’কে। এস হুসেন জ়াইদির ‘মাফিয়া কুইনস অব মুম্বই’ অবলম্বনে কামাথিপুরার এক নিষিদ্ধ পল্লির মাথা গঙ্গুবাইয়ের চরিত্রে ভাবা হচ্ছে অভিনেত্রী আলিয়া’কে। শোনা যাচ্ছে, এই চরিত্র’টির প্রস্তাব নাকি প্রিয়ঙ্কা চোপড়ার কাছেও গিয়েছিল, তবে সময়ের অভাবের জন্য তিনি তা ফিরিয়ে দেন।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...