সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

গ্রন্থাগারিকের অভাবে দীর্ঘকাল বন্ধ পড়ে রয়েছে সরকারি লাইব্রেরি!

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্ক: একদিকে যখন আসানসোল জেলা গ্রন্থাগারের উদ্যোগে ‘গ্রন্থাগার দিবস’ উৎযাপিত হচ্ছে, তখন দেখা গেলো অন্যতম ঐতিহ্যশালী একটি গ্রন্থাগার গ্রন্থাগারিকের অভাবে বন্ধ হয়ে পড়ে আছে। বন্ধ পড়ে থাকা এই গ্রন্থাগারটি হল, কুলটি’র মিঠানি সাহিত্য মন্দির। আজ থেকে আনুমানিক ৭০ বছর আগে গ্রামবাসীদের উদ্যোগেই এই লাইব্রেরি’টি তৈরি করা হয়েছিলো। পরবর্তীকালে সরকার এটিকে অধিগ্রহণ করে নেয়। জানা যাচ্ছে যে, আশেপাশের প্রায় ১৬টি গ্রামের মানুষ এই লাইব্রেরি’টির ওপর নির্ভরশীল।

সাহিত্য চর্চা থেকে শুরু করে চাকরি’র পরীক্ষা, সবকিছুর বই’ই পাওয়া যায় এই লাইব্রেরিতে। পঠন-পাঠনের দিক দিয়ে এলাকার স্থানীয় বাসিন্দা’দের কাছে খুবই জনপ্রিয় ছিল এটি। ধারণা অনুযায়ী, আনুমানিক ১২ হাজার বই আছে এই লাইব্রেরিতে। এমনকি এর পাঠক সংখ্যাও কোন অংশে কম নয়, তা স্বত্বেও বন্ধ পড়ে আছে লাইব্রেরি। সূত্র থেকে জানা যাচ্ছে, মূলত গ্রন্থাগারিকের অভাবেই দীর্ঘদিন যাবৎ বন্ধ পড়ে রয়েছে আসানসোলের এই ঐতিহ্যবাহী লাইব্রেরি’টি।

এপ্রসঙ্গে স্থানীয় এক বাসিন্দা শিলাদিত্য মুখার্জি‌ জানান, “আমরা চাইছি সরকারের উদ্যোগে নতুনভাবে গ্রন্থাগারিক নিয়োগ হয়ে লাইব্রেরিটি আবার আগের মতো হয়ে উঠুক। লাইব্রেরিটি বন্ধ থাকার কারণে আমাদের আশেপাশের গ্রামবাসী এবং ছাত্র-ছাত্রী’দের প্রচণ্ড অসুবিধা হচ্ছে।”

বিষয়টি নিয়ে জেলা গ্রন্থাগারিক সুমন্ত‌ বন্দোপাধ্যায় জানান, গ্রন্থাগারিক নিয়োগের ব্যাপারে উচ্চ পর্যায়ে জানানো হয়েছে। ওই লাইব্রেরিতে দ্রুত গ্রন্থাগারিক পাঠানোর চেষ্টা চলছে।

মন্তব্য
Loading...