সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

সব মিলিয়ে মোট চারটি বিতর্কিত এলাকা থেকে সেনা সরাবে চীন

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ ভারত এবং আন্তর্জাতিক চাপের মুখে ক্রমশ পিছু হটতে বাধ্য হচ্ছে চীন । ইতিমধ্যে লাদাখের গালওয়ান উপত্যকা থেকে দুই কিমি পিছনে সেনা সরিয়ে নিয়েছে লাল ফৌজ । এবার ভারত এবং চীনের সীমান্ত বরাবর মোট চারটি বিতর্কিত এলাকা থেকে সেনা সরাতে রাজি হয়েছে চীন । পাশাপাশি উক্ত এলাকা থেকেও ভারত সেনা সরিয়ে নিয়ে আসবে বলে আলচনায় স্থির হয়েছে ।

গত মাসের ১৫ তারিখ লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় চিন-ভারতের সেনাদের মুখোমুখি রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে ভারতীয় সেনা জওয়ানের ২০ জন শহীদ হন । পাশাপাশি অনুমান করা হয় চীনেরও ৪৫ জন সেনা মারা যায় ভারতীয় সেনার হাতে, যার মধ্যে একজন কর্নেল পদমর্যাদার মত অফিসার ছিল । এরপর উচ্চ পর্যায়ের আলোচনা চলছে দুই দেশের মধ্যে । আপাতত চীন-ভারতের সীমান্তবর্তী চারটি বিতর্কিত এলাকা থেকে উভয় দেশ সেনা সরাতে রাজি হয়েছে।

যে চারটি বিতর্কিত সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে চীন সেনা সরাতে রাজি হয়েছে সেগুলি হল লাদাখের গালওয়ান উপত্যকা, হটস্প্রিংস, গোগরা এবং প্যাংগংয়ের ফিঙার রিজিয়ন। ইতি মধ্যে লাদাখের গালওয়ান থেকে সেনা সরিয়ে ফেলেছে চীন । পাশাপাশি উত্তেজনা ক্রমশ বৃদ্ধি পাওয়ায় ভারতও উক্ত চারটি এলাকা থেকে দুই কিমি পিছনে সেনা সরিয়ে নিয়ে আসবে বলে আলোচনায় ঠিক হয়েছে ।

এনডিটিভির একটি প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে,  হটস্প্রিং ও গোগরা এলাকায় আগামীকাল পিছু হটবে চীন-ভারত বাহিনী। প্যাংগং লেকের ফিঙ্গার ৪ এলাকায় চীনা বাহিনীর গতিবিধি আপাতত পরিলক্ষিত করা হচ্ছে । দেখা গেছে তাবু থেকে সামরিক সজ্জা সরানোর উদ্যোগ নেওয়া শুরু করেছে চীনা সেনা । এদিকে সোমবারের উপগ্রহ চিত্রে দেখা গেছে, ১৪ নম্বর পেট্রল পয়েন্টে অস্থায়ী কাঠামোগুলো ভেঙে দেওয়া হয়েছে। সেই জায়গাটি এখন পরিষ্কার। ওই এলাকায় ১৫ জুন দুই দেশের সেনা সদস্যদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।

রবিবার চীনের সাথে ভারতের উচ্চপর্যায়ের এক মিটিঙয়ের পর নয়াদিল্লির পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়, দ্রুততার সঙ্গে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর ডিসএগেজমেন্ট প্রক্রিয়া শেষ করতে সম্মত হয়েছে দুই পক্ষই। জুলাইয়ের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যে সব এলাকা থেকে চীনের সরে যাওয়া নিয়ে আশা প্রকাশ করা হয়েছে ।

মন্তব্য
Loading...