সময়ের সাথে হাত মিলিয়ে

Advertisement

করোনা নিয়ে নয়া দিগন্ত ভারতীয় গবেষণায়, প্রথম তিন মানব শরীরে ভ্যাক্সিনের ট্রায়াল

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ করোনা সংক্রমণে গোটা বিশ্বের বিজ্ঞানীরা দিন রাত এক করে বিভিন্ন প্রান্ত থেকে গবেষণা করছেন । এবার করোনা ভ্যাক্সিন নিয়ে ভারতীয় গবেষণায় নয়া দিগন্ত খুলতে চলেছে । শুক্রবার রোহতাকে শুরু হল হিউম্যান ট্রায়াল।ভারতীয় গবেষকদের তৈরি ভ্যাক্সিনের ট্রায়াল প্রয়োগ করা হল তিন মানব শরীরে ।

গত বছর নভেম্বরে চীনে করোনা সংক্রমণ শুর হবার পর চলতি বছরের শুরু থেকেই খুব দ্রুত গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে মারন ভাইরাস কোভিড ১৯ । পৃথিবী জুড়ে শুরু হয় কাতারে কাতারে সংক্রমণ আর মৃত্যুর মিছিল । গোটা পৃথিবী লকডাউন করেও ঠেকানো সম্ভব হচ্ছে না এই মারন ভাইরাসের করাল থাবা । ভারতেও লকডাউনের উপর শিথিলতা আনার পর থেকেই ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে করোনা সংক্রমণের ক্ষেত্রে । এরই মধ্যে  শুক্রবার রোহতাকে ভারত বায়োটেকের তৈরি ‘কোভ্যাক্সিন’ দেওয়া হল মানব শরীরে ।

জানা গেছে, শুক্রবার প্রাথমিকভাবে ভারত বায়োটেকের তৈরি ‘কোভ্যাক্সিন’ দেওয়া হয়েছে তিন  মানব শরীরে। পরীক্ষামূলকভাবে ভ্যাক্সিন দেওয়া হলেও গবেষকদের নিবিড় পর্যবেক্ষণের মধ্যে আছেন এই তিন জন । হরিয়ানার স্বাস্থ্যমন্ত্রী অনিল ভিজ ইতিমধ্যে জানিয়েছেন, তিন জনের শরীরে পরীক্ষা মূলকভাবে করোনা ভ্যাক্সিন প্রয়োগ করার পর  এখনও পর্যন্ত কোনও বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি ।

করোনা ভ্যাক্সিনের পরীক্ষামূলক প্রয়োগ নিজেদের শরীরে করানোর জন্য গত দশ দিনে  রোহতাকের PGIMS ১০০ জনের নাম রেজিস্টার করেছে। এরা প্রত্যেকেই এই গবেষণার অংশ হতে চায়। এদিকে রাশিয়া দু দিন আগেই গোটা বিশ্বকে আশ্বাস বানী শুনিয়েছে । তাদের দাবী  এবছরই রাশিয়ায় ৩ কোটি ডোজ ভ্যাক্সিন তৈরি হবে। বিদেশে উৎপাদন করা হবে আরও ১৭ কোটি ডোজ। তবে অক্সফোর্ড -এর গবেষণার প্রতি বেশি ভরসা রাখতে চাইছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু । সেখানেও করোনা ভ্যাক্সিন নিয়ে গবেষকরা অনেক খানি এগিয়ে রয়েছে ।

তবে অক্সফোর্ড-এর গবেষকরা এর আগে করোনা ভ্যাক্সিন নিয়ে ট্রায়েলের সমীক্ষা বা ফলাফল প্রকাশ করেননি । তবে  ইউকে -র সংবাদপত্র ‘দ্য টেলিগ্রাফ’-এ উল্লেখ করা হয়েছে যে, অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটিতে যে ভ্যাক্সিনের ট্রায়াল চলছে, তা করোনা  ভাইরাসের বিরুদ্ধে দ্বিগুণ সুরক্ষা দিতে সক্ষম।

মন্তব্য
Loading...