অদম্য জেদ এবং খেলার প্রতি ভালোবাসা, এই তরুণ ফুচকা বিক্রেতাকে জায়গা করে দিল ভারতীয় ক্রিকেটের বিশ্বকাপ দলে

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ কথায় আছে, “ইচ্ছে থাকলে উপায় হয়”। এই কথাটাকে আবারও সঠিক প্রমাণ করলো ভারতীয় ক্রিকেট দলের এই তরুণ ক্রিকেটার। পেশায় তিনি ফুচকাওয়ালা হলেও অদম্য জেদ এবং খেলার প্রতি ভালোবাসা যশস্বী জসওয়ালকে জায়গা করে দিলো ভারতীয় ক্রিকেটের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ দলে।

সোমবারই ঘোষণা হয়েছে ভারতীয় ক্রিকেটের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ দলের। আর সেখানেই জায়গা করে নিয়েছে ১৭ বছর বয়সী এক তরুণ ক্রিকেটার। তাঁর নাম হল  যশস্বী জসওয়াল। কেন অন্যান্যো ক্রিকেটারদের ছেড়ে সবাই এই তরুণ ক্রিকেটারকে বেশী গুরুত্ব দিচ্ছে তা জানতে হলে চলে যেতে হবে এই ছেলেটির পারিবারিক পটভুমিতে। জন্মসূত্রে এই তরুণ ক্রিকেটার উত্তরপ্রদেশের হলেও জীবিকা নির্বাহের তাগিদে ছোটো বয়সেই চলে আসেন মুম্বাইতে। সেখানে দিনে করতেন প্র্যাকটিস এবং রাত কাটাতেন তাঁবুর মধ্যে। আর মুম্বাইয়ের আজাদ ময়দানে রাম-লীলার সময় ফুচকা বিক্রি করতেন, কিছু বাড়তি উপার্জনের জন্য। প্র্যাকটিস এবং সাথে বাবার হাত ধরে ফুচকা এবং পুরী বিক্রির পেশা। এভাবেই শুরু যশস্বীর কেরিয়ার।

১৭ বছর বয়স থেকেই মুম্বাইয়ের সিনিয়ার দলের হয়ে ক্রিকেট খেলা শুরু। এরপর ছত্তিশগড়ের বিরুদ্ধে রঞ্জিট্রফিতে তাঁর অভিষেক হয় প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে। এই বছরে ঝাড়খণ্ডের বিরুদ্ধে বিজয় হাজারে ট্রফিতে দুরন্ত পারফরম্যান্স করেন তিনি। ১৫৪ বলে ২০৩ রানে বিধ্বংসী ক্রিকেটে ১২ টি ছক্কা এবং ১৭ টি বাউণ্ডারি মারে এই তরুণ ক্রিকেটার। আর তাঁর এই খেলাই নজর কাড়ে নির্বাচকদের। এরপর তাঁকে আর ফিরে তাকাতে হয়নি।

এই দুরন্ত পারফরম্যান্স ছাড়াও এই ক্রিকেটারের ঝুলিতে রয়েছে আরও অনেক খ্যাতি। তিনি মুম্বাইয়ের হয়ে ঘরোয়া ক্রিকেট খেলেন। কনিষ্ঠতম ক্রিকেটার হিসেবে তিনি দ্বি-শতরানও করেন। এছাড়া তাঁকে বাঁ-হাতি বিরাট কোহলিও বলা হয়। তাঁর এই যাত্রা সম্পর্কে তাঁর বাবা বলেন, “ছোটো থেকেই স্বপ্ন দেখতো একদিন ভারতীয় দলের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করবে। সেই স্বপ্নই এবার পূরণ হতে চলেছে”। না খেয়ে দিনের পর দিন কাটানো বা ফুচকা বিক্রি কোনটাই বাঁধা হয়ে দাঁড়াতে পারেনি এই তরুণের জেদের সামনে।

২০২০ এর ১৭ই জানুয়ারী দক্ষিণ আফ্রিকায় শুরু হতে চলেছে অনূর্ধ্ব ১৯শ বিশ্বকাপ। যা এবার পদার্পণ করল ১৩ তম বর্ষে। ১৬ টি দল অংশ নেবে এই বিশ্বকাপে। ফাইনাল ম্যাচ হবে ৯ই ফেব্রুয়ারী। গতবছর অস্ট্রেলিয়াকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ান হয়েছিল ভারত। যার নেতৃত্ব দিয়েছিলেন পৃথ্বী শ’। এবারে ভারতীয় দলের নেতৃত্বে আছে প্রিয়ম গর্গ। দেখা যাক এবারে ভারতকে ট্রফি এনে দিতে পারে কিনা এই তরুণ ভারতীয়রা।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...