গত চব্বিশ ঘণ্টায় রেকর্ড করোনা সংক্রমণ; আতঙ্ক বাড়িয়ে দিয়ে একলাফে ৭০৪

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ টানা ২১ দিনের লকডাউনের মধ্যেও কোন ভাবে থামছে না করোনা সংক্রমণ । দিনে দিনে ক্রমশ কঠিন হয়ে উঠছে করোনার বিরুদ্ধে লড়াই । এখনও পর্যন্ত ভারতে করোনা পরিস্থিতি স্টেজ-২ পর্যায়ে রয়েছে, কিন্তু একদিনে ৭০৪ জন সংক্রামিত হবার পরে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে । পাশাপাশি আগামী ১৪ ই এপ্রিল লকডাউন আদৌ উঠবে কিনা সে বিষয়েও সংশয় থেকে যাচ্ছে ।

দিন কে দিন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা সংক্রমণের সংখ্যা । সোমবার কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের রিপোর্ট থেকে জানা গেছে, এক দিনেই করোনা সংক্রামিত হয়েছে ৭০৪ জন এবং মারা গেছে ১১১ জন । এদিকে দিল্লীর নিজামউদ্দিন কাণ্ডে জড়িত বেশ কিছু জামাত সদস্যরা এখনও পর্যন্ত পলাতক । প্রশাসন থেকে এত সাবধান করে দেওয়া সত্ত্বেও তাঁদের অনেকেই এখনও পর্যন্ত কোন চিকিৎসা করাচ্ছেন না বলেই অভিযোগ । ফলে পরিস্থিতি ক্রমশ আরও জটিল হয়ে উঠছে । এদিকে অসম সরকার মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত নিজাম কাণ্ডে জড়িত পলাতক জামাত সদস্যদের চিকিৎসার জন্য ডেড লাইন ঘোষণা করেছে । এই সময়ের মধ্যে এই জামাত সদস্যরা স্বেচ্ছায় চিকিৎসা না করালে অসম সরকার তাঁদের বিরুদ্ধে খুনের মামলা করবে বলে ঘোষণা করেছে ।

সোমবার ৭০৪ জন নতুন করে করোনা ভাইরাসের কবলে সংক্রামিত হবার পর মোট সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪২৮১ জন । এদিকে করোনা মোকাবিলায় নেমে এই কয় দিনেই দেশের অর্থনীতি অবস্থা অনেকটাই দুর্বল হয়ে পড়েছে । ইতিমধ্যে আর্থিক পরিস্থিতি সামাল দিতে ৩০ শতাংশ বেতন কমিয়ে দেওয়া হয়েছে সাংসদদের। বেতন কমছে সব রাজ্যের রাজ্যপালদের। জানা গেছে সাংসদ তহবিলের টাকা আগামী দুই বছরের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে।  কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর জানিয়েছেন, সাংসদ তহবিলের ৭৯০০ কোটি টাকা যাবে করোনা মোকাবিলার ফান্ডে।

অন্য দিকে ভারতের আর্থিক সমস্যা মেটাতে মার্কিন অ্যাড এজেন্সি এজেন্সি ফর ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্টের পক্ষ থেকে ২.৯ মিলিয়ন ডলার অনুদান হিসাবে ঘোষণা করা হয়েছে । এই বিষয়ে  ভারতে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত কেনেথ জাস্টার জানিয়েছেন, এভাবেই প্রয়োজনে ভারতকে সাহায্য করে যাবে আমেরিকা।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...