আমফান ঝড়- বাংলাদেশে ২ নম্বর সতর্কবার্তা জারি্-রাজ্যকে সতর্ক করল আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর

0

বং দুনিয়া ওয়েব ডেস্কঃ সবে জন্ম নিচ্ছে চলতি বছরের প্রথম ট্রপিক্যাল ঝড়, নাম দেওয়া হয়েছে ‘আমফান’ । কিন্তু এরই মধ্যে প্রতিবেশি দেশ বাংলাদেশ আসন্ন ঝড়ের জন্য ২ নম্বর সতর্কবার্তা জারি করল । এদিকে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর থেকেও আগাম সতর্ক জারি করা হয়েছে ।

আমফানের গতি প্রকৃতি

বাংলাদেশের আবহাওয়া বিভাগ বৃহস্পতিবার গভীর রাতে সতর্কবার্তা দিয়ে জানিয়েছে,  ঢাকা, টাঙ্গাইল, ফরিদপুর, মাদারীপুর, কুমিল্লা, নোয়াখালী ও সিলেট অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে পশ্চিম ও উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৮০ কিলোমিটার বেগে বৃষ্টি অথবা বজ্রবৃষ্টিসহ অস্থায়ীভাবে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। উক্ত এলাকার নদীবন্দরে ২ নম্বর বিপদ সংকেত দেওয়া হয়েছে । অন্য দিকে শেষপর্যন্ত আমফানের গতি প্রকৃতি দেখে  আগাম ঘূর্ণিঝড়ের জন্য  রাজ্যে সতর্কতা জারি করা হল আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের পক্ষ থেকে । হাওয়া অফিস থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে সমুদ্র উপকূলবর্তী এলাকা থেকে শুরু করে  দক্ষিণবঙ্গের বিস্তীর্ণ অঞ্চলে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস ।

আমফান

উল্লেখ্য, দক্ষিন আন্দামান সাগরে বেশ কয়েকদিন ধরেই সৃষ্টি হয়েছে গভীর নিম্নচাপ । এই নিম্নচাপ বলয় দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগর  পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে আগামি ১৯ মে নাগাদ রাজ্যের উপকুলে আছড়ে পড়তে পারে ঘূর্ণিঝড় । অন্য দিকে আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, এই মুহূর্তে  দক্ষিণ পূর্ব বঙ্গোপসাগরে ও সংলগ্ন দক্ষিণ আন্দামান সাগরের ওপর তৈরি হয়েছে নিম্নচাপ। এটি সময়ের সাথে সাথে ক্রমশ ঘনীভূত হচ্ছে । আগামি দুই দিনের মধ্যে এই গভীর নিম্নচাপ দক্ষিণ পশ্চিম ও পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগরে এসে ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নেবে। আপাতত নিম্নচাপের গতি প্রকৃতির দিকে নজর রাখছে হাওয়া অফিস ।

আমফানের অবস্থান

এছাড়া ইউরোপিয়ান সেন্টার অফ মিডিয়াম রেঞ্জ ওয়েদার ফোরকাস্ট এর রিপোর্ট অনুযায়ী আগামী উনিশে মে বাংলাদেশ সংলগ্ন উপকূলে প্রবল শক্তি নিয়ে হানা দেবে এই ঘূর্ণিঝড় আমফান। ভারতের পক্ষ থেকে ইন্ডিয়ান ন্যাশনাল সেন্টার ফর ওশেন ইনফরমেশন সার্ভিসেস এর তথ্য অনুযায়ী উড়িষ্যা থেকে পশ্চিমবঙ্গ এবং বাংলাদেশ উপকূলে আগামী উনিশে মে এই ঘূর্ণিঝড় এর দেখা মিলবে। তবে এই বিষয়ে ঠিক উল্টো কথা শোনাচ্ছে আইএমডি জিএফএস এর রিপোর্ট । তাদের দাবি, ভারতের আবহাওয়া বিভাগের ঘূর্ণিঝড় ট্র্যাকার এর মডেল অনুযায়ী জানতে পারা গেছে যে এটি ভারতের কোন উপকূলে কোনো প্রভাব ফেলবে না এবং মায়ানমারের দিকে অগ্রসর হবে।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
মন্তব্য
Loading...